দাঁতে সমস্যায় ৫ খাবার যা খাওয়া যাবে না চিবিয়েই - Vikaspedia

দাঁতে সমস্যায় ৫ খাবার যা খাওয়া যাবে না চিবিয়েই

: কথায় বলে দাঁত থাকতে দাঁতের মর্ম কেউ বোঝে না। বিশেষত যারা দাঁতের সমস্যায় ভোগেন, তারা হাড়ে হাড়ে টের পান এই কথার সত্যতা। শক্ত জিনিস চিবিয়ে খেতে গেলেই দাঁতের ব্যথায় অক্কা পাওয়ার জোগাড়। তাই দাঁত বাঁচাতে গিয়ে খাওয়াদাওয়া কমিয়ে ফেলেন অনেকেই। যা ডেকে আনতে পারে অপুষ্টি।

বিজ্ঞাপন

দাঁতে সমস্যায়

তাই দাঁত দুর্বল হলে খুঁজতে হবে এমন কিছু খাবার যা অল্প চিবিয়েই গিলে ফেলা সম্ভব। আজ আপনাদের জন্য রইল তেমনই কিছু খাবারের তালিকা। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক সেই খাবারগুলো সম্পর্কে-

দুগ্ধজাত পদার্থ ও প্রাণীজ প্রোটিন : সাধারণত দুধ থেকে তৈরি বিভিন্ন খাদ্য নরম ও সহজপাচ্য হয়। চিজ, দই কিংবা পনির গলাধঃকরণ করতে দাঁতের বিশেষ বেগ পেতে হয় না। পাশাপাশি বাঙালির অতি প্রিয় বিভিন্ন ধরনের মাছও অল্প চিবিয়েই গিলে ফেলা যায়। এই ধরনের খাদ্যগুলো দেহের প্রোটিনের চাহিদা পূরণ করতে সাহায্য করে।

খিচুড়ি : চালে ডালে তৈরি খিচুড়ি সাচ্ছন্দে খেতে পারেন আট থেকে আশি, সবাই। খিচুড়ি একটু জল বেশি দিয়ে রাঁধলে খুব একটা চিবোনোর প্রয়োজন হয় না। ডাল খাবারের শুরুতে খায় না শেষে তা নিয়ে বাঙাল-ঘটির যুদ্ধ লেগেই থাকবে। কিন্তু যখনই খান না কেন, দাঁতের সমস্যা থাকলে এমন উপকারী বন্ধু কিন্তু খুব কমই আছে।

স্যুপ : স্যুপের স্বাস্থ্যগুণ সম্পর্কে এখন প্রায় সবাই অবগত। দুটি খাদ্যের মাঝে সময়ের ব্যবধান বেড়ে যাওয়া পেটের জন্য খুব একটা ভালো নয়। স্যুপ খেলে মিটতে পারে সেই সমস্যাও। যারা দাঁতের সমস্যার জন্য মাংস খেতে পারেন না তারাও ‘দুধের স্বাদ’ স্যুপে মেটাতে পারেন।

ওটস : সঠিক পরিমাণ জলসহ রান্না করলে ওটস অত্যন্ত সহজেই গিলে ফেলা যায়। প্রয়োজনে একটু বেশি জল দিয়েই তৈরি করতে পারেন ওটস। পাশাপাশি কলা অথবা বিভিন্ন মৌসুমি ফল চটকে নিয়ে যোগ করতে পারেন ওটসে।

সিদ্ধ সবজি : সঠিক ভাবে রাঁধতে পারলে আলু সিদ্ধও হয়ে উঠতে পারে লোভনীয়। পাশাপাশি কুমড়া, পেঁপের মতো সবজি একটু বেশি সিদ্ধ করে নিলেই সহজে গিলে ফেলা যায়।